Nutrition

খালি পেটে যে খাবার গুলো খাওয়া আপনার জন্য ভালো

হেলো বন্ধুগন সকলকে স্বাগতম আমাদের এই স্বাস্থ্য বিষয়ক সাইটে। আজ আমরা যে টপিক নিয়ে আলচনা করব তা হোল খালি পেটে যে সব খাবার খাওয়া ভাল। আসুন যেনে নেওয়া যাক কি কি খাবার খালি পেটে খাওয়া আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য উপকারি।

আমরা সকলেই আমাদের শরীরকে খুব ভালোবাসি আমরা সর্বদাই আমদের শরীরকে যত্ন করে থাকি। কেননা শরীর ভাল তো জগত ভাল শরীর খারাপ থাকলে কোন কাজই ভাল লাগে না। তাই সর্বদা সুস্থ সবল থাকা একটি মানুষের মূল বিষয়। আর তাই আজ আমরা নিয়ে আসলাম সকাল বা যে কোন সময় খালি পেটে কিকি খাবার আপনার শরীরের জন্য উপকারী। আসুন সে গুলো সম্পর্কে কিছু যেনে নেই।

১। পানি

আমরা সকলেই জানি পানির অপর নাম জীবন। কেননা পানি ছাড়া কখন কোন প্রানি বাচতে পারে না। আর এই পানি আমদের শরীরে অনেক প্রয়োজনীয় খাত পূরণ করে যার ফলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা  বাড়ায়।আসুন পানি আমদের শরীরের জন্য কত গুরুত্বপূর্ণ তা যেনে নেই।

সকালে খালি পেটে পানি পান করা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ । তাই প্রত্যেক দিন সকালে খালি পেটে দুই তিন গ্লাস পানি পান করার ফলে আমাদের হজম পক্রিয়া সহজ হয় রক্তের দূষিত পদার্থ বের হয়ে যায় এসেডিটি থাকে না বোমি ভাব, গলা ব্যথা, মাসিকের সমস্যা, ডায়রিয়া ও কিডনির সমস্যা কমাতে সহয়তা করে নপ্তুন মাংস পেশী ও কোষ গঠনের পক্রিয়া তরন্যিত হয়। আপনারা বোদয় জানেন না সকালে নাস্তা করার আগে দুই তিন গ্লাস পানি পান করা মানবদেহে ইউনানি আয়ুর্বেদ বা হুমবাতির কাজ করে। যার ফলে আমদের সকলকেই সকালে উঠে খালি পেটে পানি পান করা অবশ্যই জরুরী।

২। বেজানো কাটবাদাম

আমরা সকলে হয়ত বা জানি না কাটবাদাম ভিটামিন ও খনিজ পদার্থে বরপুর। আর তা যদি পানিতে বিজানো হয় তাহলে তার ভিটামিন আর বিদ্ধি পায় আর এই বিজানো কাটবাদাম প্রতিদিন সকালে খালি পেটে ৮বা১০টি খাবেন।তাহলে সারাদিন সতেজ থাকবেন সহজে দুর্বল হবেন না। আর পুরুষদের জন্য একটি ভাল খবর তা হোল প্রতিদিন ১০টা কাটবাদান ১০টা ছুলাবুট ৬টি কিসমিস ১টি খেজুর রাত্রে পানিতে বিজিয়ে সকালে খালি পেটে খেলে যৌন শক্তি বিদ্ধি পাবে। তাই প্রতিদিন পানির পাসে পাসে কাটবাদাম খাওয়া জরুরী।

৩। বিজানো ছোলা

আমরা সকলেই হয়ত জানি ছোলা আমাদের শরীরের জন্য কতটা উপকারি। আর কাঁচা ছোলা মানবদেহের জন্য উচ্চ মাত্রার প্রোটিন যুক্ত। যার ফলে যারা সাধারন সকালে ব্যায়াম করে তারা অনেকেই ছোলা খয়ে থাকে যেটা তাদের ব্যায়াম করতে সহযোগিতা করে। এবংকি রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করে রক্তের চর্বি কমায় হৃদরোগের যুকি কমায়।যার ফলে সকালে ছোলা বুট খাওয়া মানবদেহের জন্য অনেক জরুরী।

৪। মধু

আমরা সকলেই হয়তবা জানি মধু আমদের মানবদেহে প্রায় ৮০টি রোগের মেডিসিন।তাই আমরা সকলেই চেষ্টা করব  প্রতিদিন একবার হলেও এই মধু খাওয়ার জন্য।তাই আসুন যেনে নেওয়া যাক মধু আমদের মানবদেহের জন্য কতটা জরুরী এবং গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

প্রতি দিন এক চামুচ মধু খেলে ঠাণ্ডা কফ কাসি সমস্যা থাকে না। এবংকি প্রতিদিন সকালে এক চামুচ মধু এক গ্লাস পানির সাথে মিসিয়ে খেলে এসেডিটি সমস্যা ও থাকে না। আবার প্রতি দিন খালি পেটে এক গ্লাস কুসুম গরম পানিতে এক চা চামুচ মধু লেবুর রস মিসিয়ে খেলে উজন কমে জক্রিত পরিস্কার থাকে শরীরের রোগ প্রতিরদ ক্ষমতা বিদ্ধি পায় ব্রেনের চিন্তা শক্তি বিদ্ধি করে এবং সেরতনিন হরমনের মাত্রা বিদ্ধিতে সাহায্য করে থাকে।যার কারনে আমাদের সকলকেই দৈনিক মধু খাওয়া অতেন্ত গুরুত্বপূর্ণ।।

৫। কিসমিস

আমদের দেহের জন্য কিসমিস কিন্তু অনেকটা প্রয়োজনি খাবার।এই কিসমিস মানবদেহের অনেক রোগের মেডিসিন তাই প্রত্যেক টা মানুষের  জন্য কিসমিস খাওয়া অতেন্ত গুরুত্বপূর্ণ ।তাই আসুন যেনে নেওয়া যাক কিসমিস আমাদের শরীরে কি কি কাজে লাগে।

প্রতিদিন রাত্রে ১৫০গ্রাম কিসমিস পানিতে বিজিয়ে রেখে সকালে তার পানিটা হালকা কুসুম গরম করে তা পান করবেন। তাতে হবে কি আপনার কুস্ট কাঠিন্য অনিদ্রা দূর হবে ক্যান্সার প্রতিরোদ ক্ষমতা বিদ্ধি পাবে দিষ্টি শক্তি বাড়বে রক্ত চাপ নিয়ন্ত্রণ করবে রক্ত সল্পতা দুরিকরনে বিশেষ ভাবে ভুমিকা পালন করে থাকে।ক্ষতিকর উপাদান না থাকায় যাদের স্থুল ও অদিক ডায়বিডিস রোগে আছে তাদের ছাড়া সকলেই খেতে পারবে। বিশেষ করে নারীরা কিসমিস খাওয়ার ফলে রক্ত সল্পতা দূর হবে। এসারা এতে আরজিনিন নামে একটি এমানয় এসিড থকে যা লিঙ্গ শীতলতা বা এরেক্টাইল ডিস্ফাংসনে দারুন কাজ করে ফলে শুক্রাণু সচলতা ভারিয়ে গর্ব দারণে অদিক সাহায্য করে থাকে।তাই সকলকেই প্রতিদিন সকালে কিসমিস খাওয়া অতেন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

৬। খেজুর

আমদের ইসলাম ধর্মে খেজুর একটি অন্যতম খাবার আমরা বেসিরভাগ রমজান মাসে খেজুর খয়ে থাকি।আর সকল নবী রাসুল গনের প্রিও খাবার খেজুর ছিল।এবং এই খজুর উৎপাদনের সবচে বড় স্থান হোল আরব দেশ।সারা বিশ্বে খেজুর এর চাহিদা অনেক আমদের ইসলাম ধর্ম সারাও খেজুর সকল ধর্মই খয়ে থাকে।কারন খেজুর মানবদেহের অনেক রোগের প্রতিকার করে থাকে তাই এই খেজুর সারা বিশ্বে এত্ব চাহিদা।আসুন যেনে নাউয়া যাক খেজুর মানবদেহে কি কি উপকার করে থাকে।

সকালে খালি পেটে খেজুর খাওয়া জেতে পারে কাননা খেজুরে প্রচুর পরিমানে ফাইবার ভা আশ থাকে যা কুস্ট কাটিন্য দূর করে হজম প্রক্রিয়া বিদ্ধি করা।এবংকি খেজুর মানবদেহে হৃদপিণ্ডের কর্ম ক্ষমতা বাড়ায় মটিএ জাওয়া দূর করে হার মজবুত করে শরীরে সোডিয়াম পটাসিয়াম রক্ষা করে। যার ফলে এই খেজুর ইসলাম ধর্মের সকল মানুষ রমজান মাসে এতি বেশি করে খায় জানি পাকস্তলিতে কুনো ধরণের সমস্যা না করে।তাই খেজুর খালি পেটে খাওয়া এতটা গুরুত্বপূর্ণ মানবদেহের জন্য।

৭। জাম

আমরা সকলে হয়তো প্রত্যেক বছর কম বেশি জাম খয়ে থাকি। যা আমাদের শরীরে অনেক ভিটামিন এর চাহিদা পূরণ করে থাকে। আসুন যেনে নেওয়া যাক জাম আমাদের শরীরের জন্য কি কি করে থাকে।

নিয়মিত প্রত্যেক দিন সকালে খালি পেটে জাম খেলে বিজ্ঞানিদের গবেষণা অনুযায়ী আমাদের শরীরে ভিটামিন এ,সি,এবং ই এর ঘারতি পূরণ হয়।সেই সঙ্গে এন্টী অক্সিজেন এর পরিমান বারতে সুরু করে যা শরীরের উপস্তিত তক্সিনকে বের করে দেয়।ফলে আমাদের শরীরের রোগ প্রতিরদ এতটা বিদ্ধি পায় যা ছুট বড় সকল রোগই দারে কাসে আসতে পারে না। যার ফলে জাম খাওয়া মানবদেহের জন্য প্রয়োজন।

৮। তরমুজ

আমরা সকলেই কম বেশি তরমুজ খয়ে থাকি আর এই তরমুজ আমদের শরীরের পানি শূন্যতা দূর করে থাকে।আসুন তরমুজ সম্পর্কে আর কিছু তথ্য যে নেই।

আমরা সকালে খালি পেটে তরমুজ খাওয়া যাবে এতে করে আমাদের দেহে ভিটামিন এ এবং সি পাবে জাতে ক্যলরি কম কিন্তু ইলেক্ট্রোলাটস বেশি।তরমুজে থাকা বিশেষ কএক ধরণের এমনই এসিড নাইট্রিক অক্সাইড তৈরি করে রক্তের স্বাভাবিক কার্যক্রম বজায় রাখে।তরমুজ মানবদেহে চখ ও হৃদযন্ত্রের জন্য অনেক উপকারি। তাই তরমুজ খাওয়া মানবদেহের জন্য উপকারি।

৯। আমলকী

আমরা সকলেই কম বেশি জানি আমলকীতে ভিটামিন সি এর পরিমান অনেক যা আমদের মাথার চুল পরা রোদ করে থাকে।আসুন আমলকী উপকারিতা সম্পর্কে কিছু যেনে নেই।

আয়ুবেদ স্বাস্থ্য অনুযায়ী প্রতিদিন সকালে খালি পেটে এক কাপ আমলকী জুস খেলে দিরগায়ূ হউয়া যায় এমন কি পেটের জক্রিতি হজমের সমস্যা সর্দি কাসি ভাল হয়।এছারা আমলকীর জুস রোগ প্রতিরদ ক্ষমতা  বিদ্ধি করে, স্মরণ শক্তি বাড়ায় আর আমলকী খয়ার এক দুই ঘন্টার মধ্য চা বা কফি খাবেন না।

১০। পেঁপে

প্রত্যেক দিন সকালে পাকা পেঁপে খাওয়া যাবে এতে পেট পরিস্কার হয় চুল ও ত্বক ভাল রাখে।এবংকি রক্ত নালির ক্লস্টরল জমতে বাদা দেয় ক্লন ও পস্টেট ক্যান্সার প্রতিরদে উপকার করে। যার ফলে আমাদের প্রত্যেক দিন সকালে খালি পেটে পেঁপে খাওয়া অত্তন্ত জরুরী।

***আশা করি সকলে আমার কথা গুলি ভালভেবে বুজতে পেরেছেন।খালি পেটে এই সকল খাবার আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য অনেকটা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে।তাই আমরা সকলে সর্বদাই চেষ্টা করব এই খাবার গুলি খালি পেটে খাবার জন্য।***

Leave a Reply